বাংলাদেশ স্কাউটস-এর মাধ্যমে যশোরে ডেটল-হারপিক-এর সুরক্ষাসামগ্রী বিতরণ

যশোর : বাংলাদেশ স্কাউটস-এর মাধ্যমে বাংলাদেশ স্কাউটস খুলনা অঞ্চলের অধীনস্থ যশোর জেলার পাঁচটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের জন্য সুরক্ষাসামগ্রী বিতরণ করেছে ডেটল-হারপিক। সম্প্রতি যশোর জেলার পুলেরহাট-এ অবস্থিত আঞ্চলিক স্কাউট প্রশিক্ষণ কেন্দ্র ও সদর দপ্তরে এই সুরক্ষাসামগ্রী বিতরণ করা হয়।
বিশ্বব্যাপী করোনা মহামারির কারণে দেশজুড়ে সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রায় দেড় বছর বন্ধ ছিল। এ সময় প্রায় সবরকম পাঠদান অনলাইনে সম্পন্ন হয়েছে। বর্তমানে সংক্রমণের হার তুলনামূলক কমে আসায় সরকার সম্প্রতি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শ্রেণীকক্ষে পাঠদান শুরু করেছে। তারই ধারাবাহিকতায়, সর্বত্র সঠিকভাবে স্বাস্থ্যবিধি মানা হচ্ছে কিনা তা নিশ্চিত করতে সরকারের এই উদ্যোগে একযোগে কাজ করছে ডেটল-হারপিক।
সুরক্ষাসামগ্রী বিতরণ অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশ স্কাউটস খুলনা অঞ্চলের সভাপতি এবং মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষাবোর্ড, যশোর-এর চেয়ারম্যান প্রফেসর ড. মোল্লা আমির হোসেন। প্রধান অতিথি হিসেবে অংশগ্রহণ করেন বাংলাদেশ স্কাউটস-এর জাতীয় কমিশনার (সমাজ উন্নয়ন ও স্বাস্থ্য) কাজী নাজমূল হক নাজু। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ স্কাউটসের জাতীয় উপ কমিশনার (এক্সটেনশন স্কাউটিং) মো: আবু হান্নান; বাংলাদেশ স্কাউটস খুলনা অঞ্চলের আঞ্চলিক কমিশনার এস এম আব্দুল খালেক; বাংলাদেশ স্কাউটস খুলনা অঞ্চলের কোষাধ্যক্ষ মো: দেলোয়ার হোসেন। এছাড়া উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ স্কাউটস-এর (প্রোগাম) যুগ্ম নির্বাহী পরিচালক কে এম সাইদুজ্জামান; বাংলাদেশ স্কাউটস খুলনা অঞ্চলের আঞ্চলিক উপ কমিশনার (সমাজ উন্নয়ন ও স্বাস্থ্য) মো: জাহাঙ্গীর হোসেন; বাংলাদেশ স্কাউটস খুলনা অঞ্চলের আঞ্চলিক সম্পাদক ও উপ-পরিচালক মোহাম্মদ আবুল খায়ের প্রমুখ।
অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি বাংলাদেশ স্কাউটস-এর জাতীয় কমিশনার (সমাজ উন্নয়ন ও স্বাস্থ্য) কাজী নাজমূল হক নাজু বলেন, “মহামারিকালে আমরা লক্ষ্য করছি বাংলাদেশ স্কাউটস-এর কাজের প্রাসঙ্গিকতা ব্যাপকভাবে বৃদ্ধি পেয়েছে। স্কাউটস-এর আদর্শ বর্তমান সময়ের জন্য খুবই উপযোগী এবং সামগ্রিক অবস্থায় ব্যাপকভাবে পরিব্ররতন আনতে সক্ষম। আমি ডেটল-হারপিক-কে আন্তরিক ধন্যবাদ জানাই। স্বাস্থ্য সুরক্ষা নিশ্চিতের কাজে তাদের অবদান অনস্বীকার্য।”
অনুষ্ঠানের সভাপতি, বাংলাদেশ স্কাউটস খুলনা অঞ্চলের সভাপতি এবং মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষাবোর্ড, যশোর-এর চেয়ারম্যান প্রফেসর ড. মোল্লা আমির হোসেন বলেন, “দেশ ও জাতির উন্নয়নে বাংলাদেশ স্কাউটস সবসময়ই সচেষ্ট। তবে এই মুহূর্তে সমাজের উন্নয়নের যে সুযোগ আমরা পেয়েছি তা অন্যান্য সময়ের চেয়ে অনেক ভিন্ন। সামাজিক কল্যাণে গৃহীত বিভিন্ন উদ্যোগে রেকিট বাংলাদেশ-কে আমরা সবসময়ই পাশে পেয়েছি এবং ভবিষ্যতেও রেকিটের সহযোগিতায় অসংখ্য সচেতনতামূলক কার্যক্রম পরিচালনা করতে পারবো বলে আমি আশাবাদী।”